নিজেই সারিয়ে তুলবে স্মার্ট ফোনের পর্দার ভাঙ্গা অংশ

0

আপনার ফোনটি যদি কোন কারণে নিচে পড়ে যায় এবং এর পর্দা ফেটে যায় তবে সাধারণতই আপনার কাছে দুটি বিকল্প থাকবে। হয় পর্দাটি মেরামত করতে হবে অথবা পুরো পর্দাটিই পরিবর্তন করতে হবে। কিন্তু এক্ষেত্রে ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়নবিদগণ এর তৃতীয় আরেকটি বিকল্প আবিষ্কার করেছেন। এ পর্যায়ে একটি ফোনের পর্দার মধ্যে থাকা বিশেষ পদার্থ এমন অবস্থায় নিজে নিজেই এর ক্ষত অংশকে সারিয়ে তুলবে।

গবেষকগণ এই উপদানের উপর বিভিন্ন পরীক্ষা চালিয়েছেন যা ফোনের পর্দার ফাটা এবং ক্ষত অংশ নিজে নিজেই সারিয়ে তুলতে পারে। এই পদার্থকে বিভিন্ন অংশে বিভক্ত করার ২৪ ঘন্টার মধ্যেই এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে নিজে নিজেই জোড়া লাগে। আর সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হচ্ছে এটি প্রায় ৫০ বারের মতো এই জোড়া লাগার কাজটি করে যেতে পারে। এই উপাদানটি স্ট্রেচেবল পলিমার এবং আয়নের লবন দ্বারা তৈরী করা হয়েছে।


এটি আয়ন-দ্বিমেরু মিথষ্ক্রিয়া নামক এক বিশেষ ধরণের বন্ধনের মাধ্যমে কাজ করে। আর একারণেই যখন এদের মাঝে কোন বিশৃংখলা দেখা দেয় তখন এতে বিদ্যমান আয়ন এবং অণু একে অন্যকে আকর্ষণ করার মাধ্যমে পুনরায় মিলিত হয়।
বিজ্ঞানীরা এই প্রথমবারের মতো একটি স্ব-নিরাময় যোগ্য পদার্থ তৈরী করলেন যাতে বিদ্যুৎ সঞ্চালন করা সম্ভব। বিশেষভাবে মোবাইল ফোনের পর্দা এবং ব্যাটারিতে ব্যবহার যোগ্য।

বাজারে প্রচলিত এলজি ব্র্যান্ডের কিছু ফোনে যেমন, জি-ফ্লেক্স ইতমধ্যেই এর পেছনের আবরণে এই বস্তুটি ব্যবহার করেছে যা নিজে নিজেই ক্ষত সারিয়ে তুলতে পারে তবে এর ভেতর দিয়ে বিদ্যুৎ প্রবাহিত হয়না বিধায় পর্দায় ব্যবহার করতে পারেনি।
গবেষকদের ধারণা ২০২০ সালে মোবাইল ফোনের পর্দায় এবং ব্যাটারিতে এই পদার্থ ব্যবহার করা যাবে [সায়েন্স এলার্ট- অবলম্বনে]

-শফিকুল ইসলাম

Share.

মন্তব্য করুন