Top header

ত্রিমাত্রিক প্রিন্টারে তৈরি ইঞ্জিনের রকেট উৎক্ষেপন করলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা

0

কেউই আশা করেনি কলেজ পড়ুয়া কিছু তরুণ নাসার বাঘা বাঘা সব রকেট বিজ্ঞানীদের পেছনে ফেলে এমন জয় তুলে নিতে পারবে। গত শনিবার সান ডিয়াগোর ক্যালিফোর্নীয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের কিছু ছাত্র সম্পূর্ণ ত্রিমাত্রিক (3D) – প্রিন্টারে মুদ্রিত কৃত্রিম ইঞ্জিন ব্যবহার করে একটি রকেট সফলভাবে উৎক্ষেপন করেছে। এক্সপ্লোরেশন এন্ড ডেভেলপমেন্ট অব স্পেস এর শিক্ষার্থীরা দাবি করেন এটাই প্রথম কোন বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া ছাত্রদের উৎক্ষেপিত প্রথম রকেট।

Vulcan-1 নামে এই ১৯ ফুট দীর্ঘ ও ৮ ইঞ্চি ব্যাসের এই রকেট ৭৫০ পাউন্ড ধাক্কার সৃষ্টি করতে সক্ষম। জ্বালানী হিসেবে এতে তরল অক্সিজেন এবং পরিশোধিত কেরোসিনের সংমিশ্রণ ব্যবহৃত হয়। রকেটটি প্রায় ৪০০০ ফুট পর্যন্ত উড়তে সক্ষম।

সম্প্রতি নাসা এই থ্রিডি মুদ্রিত রকেট ইঞ্জিনের উপর গবেষণা শুরু করেছেন। গত বছর তাঁরা একটি উৎক্ষেপন পরীক্ষায় থ্রিডি মুদ্রিত রকেট ইঞ্জিনের কিছু যন্ত্রাংশ ব্যবহার করেছিলেন। বেসরকারী মালিকানাধীন মহাকাশ প্রতিষ্ঠানগুলোও ইতমধ্যে থ্রিডি মুদ্রণকৃত যন্ত্রের উপর গবেষণা পরিচালনা করছে। ২০১৪ সালে স্পেসএক্স এর ফ্যালকন-৯ রকেট একটি থ্রিডি মুদ্রিত ভালব নিয়ে উৎক্ষেপিত হয়েছিল। তবে যতদূর আমরা জানতে পেরেছি, বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া কোন শিক্ষার্থী কর্তৃক উৎক্ষেপিত প্রথম রকেট এটি।[Bagaveev Corporation এই রকেট উৎক্ষেপন প্রক্রিয়ার পৃষ্ঠপোষকতা করেন।]

উৎক্ষেপন মূহুর্তের দৃশ্য নিচের ভিডিওটিতে।

Share.

মন্তব্য করুন