পনেরো বছর পরেও আলাদা হতে অনিচ্ছুক

0

“The BLT”  নামে পরিচিত বেলু আমেরিকান কালো ভালুক, লিও সিংহ এবং শেরে খান বেঙ্গল টাইগার এই ত্রয়ী গত ১৫ বছর একই সাথে একটি পশু আশ্রয় কেন্দ্রে বসবাস করে আসছে। ২০০১ সালে জর্জিয়ার আটলান্টায় পুলিশ মাদক চোরাচালানকারী ধরতে অভিজান চালানোর সময় অল্প কয়েক মাস বয়সেরে এই তিনটি পশু খুঁজে পায়। স্বল্প ওজন ও অপুষ্টিতে ভুগতে থাকা অবস্থায় খাঁচায় আবদ্ধ একটি বাড়ির ভেতর থেকে তাদের উদ্ধার করা হয়।

no-se

এখন পর্যন্ত তারা Noah’s Ark প্রাণী অভয়ারণ্যতে একটি খাঁড়ি এবং বারান্দা দ্বারা আবৃত কাঠের তৈরী ঘরে একসঙ্গে বসবাস করছে। আটলান্টার দক্ষিণ-পশ্চিমে শহরতলীসুলভ আবাসস্থলে এই ত্রয়ী খাওয়া, ঘুম, একসাথে খেলা এমনকি পরষ্পরের সাথে মাথা ঘষা থেকে শুরু করে একে অন্যের সাথে স্নেহ ভালোবাসার আদান-প্রদান করে থাকে। প্রত্যেকে একে অন্যের শরীর চেটে দেয়ার কাজটিও করে থাকে।

“জীবনের প্রথম দিকের কয়েক মাসের ভীতিকর পরিস্থিতি তাদের মাঝে বন্ধন তৈরী করেছে এবং এদের মাঝে সুষ্পষ্ট পার্থক্য থাকা সত্ত্বেও সত্যিই এরা অবিচ্ছেদ্য।”

একমাত্র বেলুর অস্ত্রোপাচারের সময়েই এই ত্রয়ী একে অন্যের থেকে আলাদা হয়েছিলো। Noah’s Ark বলেন, “এ কারণে লিও ও শেরে খান অত্যন্ত বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে এবং তাদের পরিবারের সদস্য ফিরে পাওয়ার জন্য গর্জন করতে থাকে। বেলুর অস্ত্রোপাচারের পর তাকে আবার তার ভাইদের কাছে ফিরিয়ে দেয়া হয় এবং তারা আবার একসঙ্গে মিলিত হয়েছে। তাদের মাঝে খুব কম সময়ই ঝগড়া হয়েছে।”

-শফিকুল ইসলাম

Share.

মন্তব্য করুন